ব্রাজিলিয়ানরা এখন সত্যিই ভিনিসিয়াসকে নিয়ে গর্বিত

“আশাকরি একদিন প্রত্যেক ব্রাজিলিয়ানকে আমার জন্য আনন্দিত করতে পারব। সবাই আমার জন্য গর্বিত হবে।” ২০২০ সালে ভিনিসিয়াস জুনিয়র একটি সাক্ষাৎকারে এই কথা বলেছিলেন।

ভিনিসিয়াস জুনিযর যখন এই কথা বলেন তখন তিনি ছিলেন সমালোচনার শিকার। রিয়াল মাদ্রিদ ৪৫ মিলিয়ন ইউরো দিয়ে তাকে কিনেছিল ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে।

কিন্তু ভিনিসিয়াস জুনিয়র তার প্রতিভা ঠিকমত মেলে ধরতে পারছিলেন না। ম্যাচের পর ম্যাচ দারুণ পারফর্মেন্সের সঙ্গে হতাশাজনক ফিনিশিং ছিল তার সঙ্গী।

গতি বা ড্রিবলিংয়ে ভিনিসিয়াস শুরু থেকেই ছিলেন অনন্য। কিন্তু ফিনিশিং নিয়েই ছিল তার যত সমস্যা। সেজন্য চরম ভাবে সমালোচনার শিকার হয়েছিলেন।

দুই বছর পর সেটা করে দেখালেন ভিনিয়াস জুনিয়র। ২০২২ সালে এসে চলতি মৌসুমের অন্যতম সেরা তারকা হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেছেন।

ভিনিসিয়াস চলতি মৌসুমে ৪৩টি গোলে সরাসরি অবদান রেখেছেন। ২২টি গোল করেছেন, ২১টি অ্যাসিস্ট করেছেন তিনি। জিতেছেন লা লিগা শিরোপা, স্প্যানিশ সুপার কাপ এবং চ্যাম্পিয়নস লিগ শিরোপা। তারমধ্যে চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে তো তারই গোলে জিতল শিরোপা।

ভিনিসিয়াসের ২০২০ সালের সেই সাক্ষাৎকারের কথাগুলো যেন এখন বাস্তবে পরিণত হচ্ছে। ভিনিসিয়াস জুনিয়র এখন সত্যিই ব্রাজিলিয়ানদের জন্য গর্ব।

Related posts