নাপোলির বিপক্ষে ম্যাচে বার্সার পজিটিভ নেগেটিভ দিকগুলো নিয়ে লিখেছেন উবায়দুল্লাহ

নাপোলিকে উড়িয়ে দিয়ে উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের কোয়ার্টার ফাইনাল নিশ্চিত করেছে বার্সালোনা। আজ মহাগুরুত্বপূর্ণ দ্বিতীয় লেগে নাপোলিকে ৩-১ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে মেসিরা।

নাপোলির মাঠে দুই দলের প্রথম লেগের ম্যাচটি ড্র হয়েছিল ১-১ গোলে। যার কারণে বার্সার মাটিতে আজকের দ্বিতীয় লেগের ম্যাচটি বেশ গুরুত্বপূর্ণ ছিল উভয় দলের জন্যই। যারা জিতবে তারাই যাবে কোয়ার্টারে। আর এমন ম্যাচে দুর্দান্ত খেলে জয় নিয়ে কোয়ার্টার ফাইনাল নিশ্চিত করে বার্সা।

এই ম্যাচে বার্সালোনা দুর্দান্ত খেললেও কিছু পজিটিভ এবং নেগেটিভ দিক ছিল। সেগুলো নিয়েই এই আলোচনা..

**নেগেটিভ বিষয়গুলো..

* প্রথম যে জিনিসটা চোখে পড়ার মতো ছিলো, তা হলো ম্যাচে একাধিক ভুল পাস হয়েছে। সতীর্থ কাউকে পাস দিতে গিয়ে সেটা ভুল করে দিয়েছে নাপোলির প্লেয়ারদের কাছে। এই জিনিসটায় উন্নতি লাগবে সামনের ম্যচে। এই ধরনের একটা পাসও ভুল হলে বড় বিপদ হতে পারে বায়ার্নের বিপক্ষে।

* ডিফেন্সে পিকে আর লেনগ্লেট সিজন এর সেরা খেলাটা খেললেও পিকে খেলার প্রথম দিকেই একবার ভুল করে বসছিল, কিন্ত মার্টিনস সেটা কাজে লাগাতে পারিনি। এই ভুলগুলো বায়ার্নের বিপক্ষে করা যাবে না।

* সুয়ারেজের বয়স এর ছাপ স্পষ্ট। খেলার ভিতর ওর কোন এগ্রেসিভ মুড এখন নেই। সহজ সুযোগও এখন মিস করে বসে। বায়ার্ন এর ম্যাচে ওকে নামানো মানে প্লেয়ার ১০ টা নামানো। এর থেকে লেফটে ডেম্বেলে, স্ট্রাইকার গ্রীজম্যান আর রাইটে মেসিকে খেলানো ভালো হবে।

* রাইট ব্যাকে সোমেদো কাভার কিছুটা দিতে পারলেও, লেফটে আলবা অতোটা কার্যকরী নয় এখন। তার পুরানো পারফরম্যান্সটা দরকার।

**পজেটিভ দিক..

* ডিফেন্সে পিকে আর লেনগ্লেট ভালো করছে। বিশেষ করে ট্যাকেল, ইন্টারসেপ্ট, শট ব্লকড এর দিক দিয়ে লেনগ্লেট অনবদ্য ছিল। আর পিকে অনেকগুলো ক্লিয়ারেন্স দিয়েছে। ২/১ টা ভুল থাকলেও এই সিজনে ছেলেমানুষী ভুল গুলো কম হয়েছে।

* রাইটে সোমেদোর বরাবরের মতো স্পিড ছিলো দেখার মতো। কাল স্পিড এর পাশাপাশি অনেক গুলো ড্রিবলিং করে, বল ডিবক্স পর্যন্ত নিয়ে গেছে৷ সব দিক দিয়ে সোমেদোর খেলা কাল দেখার মতো ছিলো। লেফটে আলবা স্লো এখন। তারপরও কাল কিছু কী পাস ছিলো ম্যাচে তার। তবে পারফর্মেন্সে উন্নতি করতে হবে।

* কাল মিডফিল্ডে বুস্কেটস এর অভাব রাকিটিচ বুঝতে দেয়নি, অনবদ্য ছিলো। আরো একবার নিজেকে প্রমান করেছেন তিনি। আর ডি জং এর পারফর্মেন্স এর ব্যাপারে বলার অপেক্ষা রাখেনা। একজন সেন্ট্রাল মিড হিসাবে কাল তার সেরাটা দিয়েছে। এতটুক পারফরম্যান্স করতে পারলেই হবে৷

লেখা: উবায়দুল্লাহ

[স্পোর্টস প্রতিদিনে লেখা পাঠাতে পারেন আপনিও। যেকোন প্লেয়ার, দল কিংবা আপনার মতামত লিখে পাঠাতে পারেন আমাদের কাছে।]

Related posts

Leave a Comment